চেতনা নাশক ঔষধ খাওয়ায়ে হাতিয়ে নিল ২লাখ ৬০হাজার টাকা

বিজ্ঞাপন

বাসের মধ্যে চেতনা নাশক টেবলেট খাওয়ায়ে অজ্ঞান করে ২লাখ ৬০হাজার টাকা হাতিয়ে নিয়েছে একটি প্রতারক চক্র। শনিবার বিকাল ৪টার দিকে বৃত্তিপাড়া থেকে ঝিনাইদহে আসার পথে খুলনাগামী একটি বাসের মধ্যে ঘটনাটি ঘটে।

বর্তমানে লোকটি ঝিনাইদহের হাসান ক্লিনিকে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

স্বজনদের কাছ থেকে জানা যায়, ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ধুপাবিলা গ্রামের পল্লী চিকিৎসক ইসমাইল হোসেন (৬৫) শনিবার সকালে গরু কেনার উদ্দেশ্যে কুষ্টিয়ার বালিয়া পাড়া গরুর হাটে যায়। গরুর দাম সুবিধামত না পেয়ে বেলা তিনটার দিকে হাটের থেকে বাড়ির দিকে রওয়ানা দেয়। বৃত্তিপাড়া বাসস্ট্যান্ড থেকে ঝিনাইদহে আসার উদ্দ্যেশে খুলনাগামী একটি বাসে উঠে। বাসে কোন খালি সিট না থাকায় লোকটি প্রথমে দাড়িয়ে ছিল তারপর দুজন ভদ্রবেশী প্রতারক তাকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেয় এবং তাদের পাশে বসার সুযোগ করে দেয়। আলাপচারিতার কিছুক্ষন পরে তারা মেডিক্যাল রিপ্রেজেনটেটিভ বলে নিজেদের পরিচয় দেয়।

আরো পড়ুন:
ঝিনাইদহ পানি উন্নয়ন বোর্ডে ১টি চামচ ৯৭ হাজার টাকা দুর্নীতি নথি তলব করেছে দুদক
মুক্তিবাহিনীর আশ্রয় দেওয়ার অপরাধে পুড়িয়ে দেওয়া একটি বাড়ী

এভাবে শেখপাড়া বাসস্ট্যান্ড ছাড়িয়ে আলাপ পরিচয়ের একপর্যায়ে তাদের কাছে ভাল গ্যাসের টেবলেট আছে বলে জানান এবং কৌশলে একটা খাওয়ায়ে দেন। এক পর্যায়ে ইসমাইল হোসেন জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন তখন তার কোমরে থাকা ২লাখ ৬০ হাজার টাকার ব্যাগটি নিয়ে প্রতাকর চক্রটি সটকে পড়ে। তার সাথে আর একজন সঙ্গি ছিল বাসের পিছনের দিকে বসা সে এসব ঘটনার কিছুই বুঝে উঠতে পারেনি। পরে ঝিনাইদহে পৌঁছালে অজ্ঞান অবস্থায় সন্ধ্যা ৬টার দিকে ঝিনাইদহ শহরের হাসান ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়। দীর্ঘ ১২ঘন্টা চিকিৎসার পর লোকটির জ্ঞান ফিরেছে এবং আস্তে আস্তে টেবলেট খাওয়ানোর ঘটনা বর্ননা দিতে পারছেন।

এব্যাপারে ঝিনাইদহ সদর থানায় অজ্ঞাত প্রতারক চক্রদের বিরুদ্ধে একটি মামলার প্রক্রিয়া চলছে।

সেপ্টেম্বর ০৫.২০২১ at ১৬:৫৬:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/কল/জআ