ভাঙ্গামোর ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের পদ শূন্য থাকায় চরম ভোগান্তিতে জনসাধারণের

বিজ্ঞাপন

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী উপজেলার ৫ নং ভাঙ্গামোড় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের পদ শুন্য হওয়ায় চরম ভোগান্তিতে পড়েছে ওই ইউনিয়নের সাধারণ মানুষ। একদিকে চেয়ারম্যান নাই অন্যদিকে প্রস্তাবিত প্যানেলের ১ ও ২ নম্বর সদস্য দ্বয়ের বিরুদ্ধে নিজেদের স্ত্রীর নামে ভিজিডি কার্ড সহ বিভিন্ন সরকারী সহায়তা গ্রহনের কারনে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সহ বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দায়ের হয়েছে। ফলে প্যানেল চেয়ারম্যান হিসাবে তারাও দায়িত্ব পাচ্ছেননা । এমতবস্থায় ওই ইউনিয়ন পরিষদটিতে স্থবিরতা বিরাজ করছে।

জানা গেছে, বিভিন্ন অনিয়মের কারনে গত ৬ জুন স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মো.আবু জাফর রিপন পিএএ স্বাক্ষরিত ৪৬.০০.৪৯০০.০১৭.২৭.০০৫.২০২১.৪৬৬ নং প্রজ্ঞাপনে ভাঙ্গামোড় ইউনিয়নের চেয়ারম্যান লুৎফর রহমান বাবুর পদ শুন্য ঘোষনা করা হয়। এদিকে প্রস্তাবিত প্যানেলের ১ নম্বর ইউপি সদস্য বাদশা মিয়ার বিরুদ্ধে স্ত্রীর নামে ভিজিডি কার্ডের চাউল উত্তোলনের অভিযোগ উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তার দপ্তরে তদন্তনাধীন রয়েছে।

তার উপর প্যানেলের ২ নম্বর ইউপি সদস্য হযরত আলীর বিরুদ্ধেও স্ত্রীর নামে ভিজিডি কার্ড এবং নিজে এবং পিতামাতা সহ আত্নীয় স্বজনের নামের রেশন কার্ডের চাউল উত্তোলনের অভিযোগ দায়ের করেছে বঞ্চিত জনসাধারণ। এ অবস্থায় বিচার সালিশ, জন্ম সনদ উত্তোলন, পরিচয়পত্র গ্রহন, ট্রেড লাইসেন্স নেয়া সহ ইউনিয়ন পরিষদ সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন গুরত্বপুর্ন কাজে জনসাধারণকে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

ওই ইউনিয়নের বাসিন্দা মোহাম্মদ আলী, সাইফুর শেখ ও মকবুল হোসেন জানান, ইউনিয়ন পরিষদে সারাদিন বসে থাকলেও মেম্বার চেয়ারম্যান কারও দেখা মেলে না। আমরা ভাঙ্গামোড়বাসী ইউনিয়ন পরিষদের সেবার পরিবর্তে দুর্ভোগ পোহাচ্ছি।

আরো পড়ুন:
মটরসাইকেল দূর্ঘটনায় আহতদের বাঁচাতে গিয়ে উদ্ধার হলো ৫৯ বোতল ফেন্সিডিল
পাইকগাছা আদালতের পুলিশ কনস্টেবল আজিজুরের করোনায় মৃত্যু

এ প্রসঙ্গে ইউএনও সুমন দাস বলেন, আমার পর্যায় থেকে আমি জনগণের ভোগান্তি লাঘবের সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো। আর প্যানেল চেয়ারম্যানের দায়িত্বের ব্যাপারে উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। নির্দেশনা আসলে সে মোতাবেক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

জুন ,২৪.২০২১ at ১০:৪৮:৪২ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/বিএম/এসআর