বগুড়ার গাবতলীতে টিআর-কাবিটার কাজে পাল্টে গেছে গ্রাম বাংলার রাস্তা ঘাট

বিজ্ঞাপন

বগুড়ার গাবতলী উপজেলার টিআর-কাবিটার কাজে পাল্টে গেছে গ্রাম বাংলার রাস্তা ঘাট। যোগাযোগ ব্যবস্থার অমূল্য পরির্বতনে কৃষি ,ব্যবসার ক্ষেত্রে উন্নত হচ্ছে গ্রামিন জনপদ।

জানগেছে বগুড়া জেলার গাবতলী উপজেলার ২০২০-২১ অর্থ বছরে গ্রামীন অবকাঠামোগত সংস্কার কর্মসূচির আওতায় স্থানিয় সংসদ সদস্য রেজাঊল করিম বাবলুর কর্র্তৃক ২য় বরাদ্ধ কাবিটা ২৩ প্রকল্প টিআর ৩৩ প্রকল্প, সাধারন কাবিটা ১৫ টি প্রকল্প টিআর ২১ টি প্রকল্প, তৃতিয় পর্যায়ে এমপি বারাদ্দ কাবিখা ১৭ প্রকল্প টিআর ৩৪ টি প্রকল্প, চতুর্থ পর্যায়ে এমপি বরাদ্দ কাবিখা ১১ টি প্রকল্প টিআর ১১ প্রকল্পের প্রায় ৪ কোটি টাকা ব্যয়ে ইট বিছিয়ে এইচবিবি রাস্তা করন, সিসি ছলিং ও মাঠি ভরাটের মাধ্যমে কাজ উপজেলা ত্রান ও দুর্যোগ অধিদপ্তরের অধীনে সর্ম্পন্য হয়েছে।

উপজেলার সোনারায় ইউনিয়নের বামুনিয়া লাপিতপাড়া গ্রামের রাস্তায় ইটের সোলিং এর কাজ সুন্দর ভাবে সর্ম্পন্য হয়েছে। এই গ্রামের নুরুল ইসলাম জানায় এই রাস্তায় বর্ষকালে কাঁদার কারনে মানুষ চলাচলের খুব কষ্ঠ হত। রাস্তায় ইট বিছানোর কারনে আমাদের চলাচলের অনেক সুবিধা হইছে। এ ছারা উপজেলার দুর্গাহাটা ইউনিয়নের নিজদুর্গাহাটা গ্রামের খলিলের বাড়ী হইতে ইছামতি নদী পর্যন্ত রাস্তায় মাটি ভরাট শেষ করা হয়েছে।

এই গ্রামের হাবিল মিয়া জানায় এই রাস্তাটি বহুদিন থেকে মানুষের চলাচলে অযোগ্য ছিল রাস্তায় মাটি কাটার ফলে আমাদের এখন অনেক সুিবধা হইছে। এ ছারা দুর্গাহাটা ইউনিয়নের বৈঠাভাঙ্গা গ্রামের খোকনের দোকান হইতে রেজাউলের বাড়ী পর্যন্ত রাস্তায় ইট বিছানোর কাজ ও কিত্তুনিয়া খেয়া ঘাট হতে মুকুলের বাড়ি পর্যন্ত রাস্তায় মাটি ভরাটের কাজ সমাপ্ত হয়েছে।

গাবতলী সদর ইউনিয়নের খিদ্রপেরী পশ্চিম পাড়া গ্রামের কামালের বাড়ি হইতে মিঠুর বাড়ি পর্যন্ত রাস্তায় মাটি ভরাট ও ইট বিছানোর কাজ সমাপ্ত করা হয়েছে। এই কাজগুলোর পরিদর্শন ও খোঁজ খবর নিয়ে জাতীয় সংসদ সদস্য মোঃ রেজাউল করিম বাবলু সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা রাসেদুল ইসলাম জানায় এবার কাবিটা ও টিআর বরাদ্ধ পাওয়ার সাথে সাথে গ্রাম অন্চলে রাস্তায় মাটি ভরাট ও ইটের সোলিং এর কাজ সুন্দর ভাবে শেষ করা হয়েছে। এই বর্ষকালে মাটির রাস্তায় কাঁদার কারনে জনগন চলাচল করতে পারেনি সে রাস্তা গুলি অগ্রধিকার ভিত্তিতে ইট বিছানোর কারনে অনুপযুগী রাস্তা চলাচলে যোগ্য হয়ে উঠেছে।

জাতীয় সংসদ সদস্য মোঃ রেজাউল করিম বাবলু বলেন, গ্রামকে শহরে রুপান্তিত করতে ব্যাপকভাবে কাজ করে চলেছেন সরকার । আগামীতে আরো বেশী বেশী টিআর কাবিটা নিয়ে এসে এলাকার আরো উন্নয়ন করা হবে। গ্রামের কোন কাঁচা রাস্তা থাকবে না।

জুলাই,১৭.২০২১ at ১৭:২২:৪২ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/এমটি/এসআর