‘মোটা হয়ে যাচ্ছ’! স্বামীর টিপ্পনীতে ওজন ঝরিয়ে ২২ কেজি! মহিলাকে ভর্তি করানো হল হাসপাতালে

ছবি- সংগৃহীত।

অনেকেই নিজেকে ‘স্লিম’ রাখার চেষ্টায় ডায়েট করেন। জিমে যান। কিন্তু এক মহিলা স্বামীর কথায় প্রভাবিত হয়ে নিজেকে ‘স্লিম’ করতে গিয়ে শেষমেশ অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলেন।

ঘটনাটি রাশিয়ার বেলগোরোডের। মহিলার নাম ইয়ানা বোভরোভা। উচ্চতা ৫ ফুট ২ ইঞ্চি। শরীরের গড়ন নিয়ে একটি টিপ্পনী করেছিলেন তাঁর স্বামী। তিনি ইয়ানাকে দেখে বলেছিলেন, “তুমি খুব মোটা হয়ে যাচ্ছ। গালের মাংস ঝুলে যাচ্ছে।” স্বামীর এই টিপ্পনী খুব একটা ভাল লাগেনি ইয়ানার। সেই মন্তব্য শোনার পর থেকেই নিজের চেহারা নিয়ে সন্দিহান হয়ে ওঠেন।

> না ফেরার দেশে সিরাজুল আলম খান
> প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকি: বিএনপি নেতা চাঁদ কারাগারে

রাশিয়ার টেলিভিশন চ্যানেলের এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, চেহারা নিয়ে স্বামীর মন্তব্য তাঁর ভাল লাগেনি। ফলে চেহারায় কী ভাবে সৌন্দর্য ফিরিয়ে আনা যায়, তা নিয়ে ভাবনাচিন্তা শুরু করেন। প্রথমেই বেছে নেন জিমকে। নিয়মিত জিম করে শরীরের মেদ ঝরানোর কাজ শুরু করেন ইয়ানা। একই সঙ্গে দিন দিন নিজের খাবারের পরিমাণও কমিয়ে দেওয়া শুরু করেন তিনি। ইয়ানা জানান, তাঁর খাবারের তালিকা থেকে অনেক কিছু ছেঁটে ফেলেন। তাঁর খাবারের তালিকায় ছিল কুকিজ়, চা, ক্যান্ডি, এক টুকরো চিজ়, অর্ধেক গ্লাস স্যুপ।

এ ভাবে দিনের পর দিন জিম এবং খাবারের তালিকায় অসামঞ্জস্যে দ্রুত ওজন কমতে থাকে ইয়ানার। একটা সময় সেই ওজন ২২ কেজিতে পৌঁছয়। এর পরই গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন ইয়ানা। চিকিৎসকেরা তাঁর কথা শুনে চমকে ওঠেন। তাঁরা জানান, ইয়ানার শরীর ঠিক মতো খাবার না পাওয়ায় ভিতর থেকে খোকলা হয়ে গিয়েছিল। শরীর শরীরকেই খেতে শুরু করেছিল। ডেলি স্টার-এর প্রতিবেদনে আরও বলা হয়েছে, এক সময় ইয়ানার ওজন নাকি ১৭ কেজিতে নেমে গিয়েছিল।

জুন ০৯, ২০২৩ at ১৬:৪২:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/দেপ্র/ইর