সাংবাদিক মাসুম হায়দার কে প্রাণনাশের হুমকি

উত্তরা প্রেসক্লাবের সদস্য ও সাপ্তাহিক উত্তরা বাণী পত্রিকার সিনিয়র স্টাফ রিপোর্টার সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দারকে প্রাণনাশের হুমকী দিয়েছেন মহিলা আওয়ামীলীগের এক নেত্রী। ওই ঘটনায় আ’লীগ নেত্রীর বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী সাংবাদিক।

জানা গেছে, ঢাকা মহানগর উত্তর ৫০ নং ওয়ার্ড দক্ষিণখান থানা মহিলা আওয়ামীলীগ সেক্রেটারী পরিচয় দানকারী সোনিয়া আক্তার ওরফে সোনি এবং তার আত্নীয় সোহেল খান গংরা দল-বল নিয়ে বেআইনী ভাবে (জোর পূর্বক) মসজিদের ভিতর এবং বাহিরে উত্তেজিত হয়ে সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দারকে প্রকাশ্যে দিবালোকে এই হুমকী প্রদান করেন বলে তিনি সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ করেন।

আরো পড়ুন :
> ইবি শিক্ষককে মারধর: সেই ব্যাংক কর্মকর্তাকে সাময়িক বরখাস্ত
> শুক্রবার যবিপ্রবিতে দীর্ঘসময় বিদ্যুৎ বিভ্রাট

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে রাজধানীর উত্তরা ৩ নং সেক্টরে ভূতের আড্ডা চাইনিজ রেষ্টুরেন্ট আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে দক্ষিনখানের পূর্ব আজমপুর বাইতুল মা’মুর জামে মসজিদের সেক্রেটারী সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দার এসব অভিযোগ করেন। এসময় সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দার প্রেসব্রিফিংয়ে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে বাইতুল মামুর জামে মসজিদের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ নুরুল ইসলাম, সেক্রেটারি, শেখ মাসুম হায়দার, জয়েন্ট সেক্রেটারী মো. সিরাজুল ইসলাম, শেখ শামীম রেজা, ও মনির উদ্দিন আসাদ, উত্তরা প্রেস ক্লাবের সাবেক সভাপতি মো: রাসেল খান, বর্তমান সাধারন সম্পাদক মো: দেলোয়ার হোসেনসহ গণমাধ্যম কর্মীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, রাজধানীর দক্ষিনখান থানার আজমপুর কাঁচাবাজার ১৫৯ নং ডানের জামতলা বাসার বাসিন্দা এবং শেখ আবু জাফর আহম্মদ এর পুত্র শেখ মাসুম হায়দার বাদি হয়ে দক্ষিনখান থানায় একটি সাধারন ডায়েরি (জিডি) করেন। যার জিডি নং-২২৪। তারিখ-০৪-০৬-২০২৩।

সংবাদ সম্মেলনে শেখ মাসুম হায়দার বলেন, গত ২ জুন ২০২৩ দিবাগত রাত সাড়ে ১০ টার দিকে দক্ষিনখানের পূর্ব আজমপুর বাইতুল মা’মুর জামে মসজিদের সামনে বিবাদি মো: সোহেল খান ও মো: রাসেল খান মসজিদের পূর্বের হিসাব নিকাশ সংক্রান্ত বিষয়াধী নিয়ে মারমুখী আচরন করে আমাকে অকথ্য ভাষায় গালমন্দ করতে থাকে। এসময় সোহেল খান গংদের বিরুদ্ধে সিআর মামলা নং-৬১১/২০২২ দক্ষিনখান, ধারা-৪২০/৪০৬/৫০৬ পেনাল কোড প্রত্যাহার করে নিতে আমাকে (মাসুম হায়দারকে) মসজিদ কমিটির সহ-সভাপতি বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি ও হুমকী প্রদান করে। শেখ মাসুম হায়দার অভিযোগ করে বলেন, ঘটনার সময় তানজিলা আক্তার সোনিয়া ওরফে সনি মসজিদ কমিটির সবাইকে নারী নির্যাতনসহ মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানী করার ও হুমকী প্রদান করেন। বিবাদীদের এহেন কার্যকলাপে বর্তমান সাধারন মুসল্লিসহ কমিটির অন্যান্য সদস্যদের আতঙ্ক বিরাজ করছে।

উক্ত বিবাদীগন যে কোন সময় সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দারসহ অত্র মসজিদ কমিটির সভাপতিসহ সকলের ক্ষতি সাধন করতে পারে বলে আশংন্কা করা হচেছ। সংবাদ সম্মেলনে শেখ মাসুম হায়দার জানান, ২০২১ সালের ১৭ নভেম্বর তারিখে দৈনিক আজকের আলোকিত সকাল পত্রিকায় ‘পাকিস্তানী সুবেহ খানের নাতী সোহলে খান খোল পাল্টে আওয়ামীলীগে সক্রিয়, নেপথ্যে কারা?’ শীর্ষক একটি নিউজ প্রকাশিত হয়। ওই প্রকাশিত সংবাদের জের এবং পূর্ব শত্রুতার বলে সোহেল খান গংরা আমাকে (তাকে) প্রাণ নাশের হুমকী সহ মিথ্যা মামলা দিয়ে অহেতুক ভাবে হয়রানী করছে বলে তিনি জানান। এব্যাপারে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, মাননীয় মেয়র, ঢাকা উত্তর সিটি কপোর্রেশন, মাননীয় সংসদ সদস্য, ঢাকা-১৮, আইজিপি, পুলিশ সদরদপ্তর,উপ-পুলিশ কমিশনার ডিসি (উত্তরা বিভাগ), ঢাকা মহানগর উত্তর মহিলা আওয়ামীলীগ কার্যালয় ও উত্তরা প্রেস ক্লাব, কার্যালয়ে অনুলিপি প্রদান করা হয়েছে বলে তিনি জানান। এঘটনার পর থেকে সাংবাদিক শেখ মাসুম হায়দার পরিবার পরিজন নিয়ে অনেকটাই মানবেতন জীবন যাপন করছেন। এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, আইজিপিসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সার্বিক সহযোগীতা কামনা করেছেন।

জুন ০৯, ২০২৩ at ১৫:১৩:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/মোরইমি/ইর