মদনে অর্ধ-বার্ষিক ইংরেজি ২য় পত্রের প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ

নেত্রকোনার মদনে মাধ্যমিক এক বিদ্যালয়ের অর্ধ-বার্ষিক ইংরেজি ২য় পত্রের প্রশ্ন পরীক্ষার আগেই ফাঁস হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গত দুই দিন ধরে প্রশ্নটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইজবুক ফেইজে পাওয়া যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার এ পরীক্ষাটি হওয়ার কথা ছিল। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা শফিকুল বারী প্রশ্নটি বাতিল এবং পরিবর্তন করার নির্দেশ দেন। বালালী বাঘমারা উচ্চ বিদ্যালয়ে এমন ঘটনা ঘটে। এ নিয়ে অভিভাবক ও সচেতন মহলের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে। এদিকে সরকার কর্তৃক নির্দেশনা রয়েছে প্রতিটি বিদ্যালয় নিজেরাই প্রশ্ন তৈরি করবে। তবে এ বিষয়টি না মেনে প্রশ্নে বিদ্যালয়ের নামটিও ভুল করছে। এ নিয়ে সাবেক ও বর্তমানে ছাত্রদের মধ্যে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে। বিদ্যালয়টি নাম বালালী বাঘমারা হলেও প্রশ্নে এসেছে বালালী বাগজান উচ্চ বিদ্যালয়।

আরো পড়ুন :
> দুইমাস ট্রেজারার পদ শূন্য যবিপ্রবিতেঃ আলোচনায় তিন অধ্যাপক
> তীব্র তাপদাহে পুড়ছে পাট দুঃচিন্তায় কৃষক

বিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী শুভ্রত হাসান তূর্য জানান, একটি প্রশ্নে বিদ্যালয়ের নাম ভুল হবে আমি এই প্রথম দেখলাম। আমার মনে হয় শিক্ষকদের অবহেলার কারণেই এমন ঘটনা ঘটছে। একদিকে প্রশ্ন ফাঁস আরেক দিকে বিদ্যালয়ের নাম ভুল। ঐতিহ্যবাহী প্রতিষ্ঠানটিকে বাচাঁতে বিষয়টি কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করছি।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ওয়াহিদুজ্জামান তালুকদার বলেন, বুধবার ৯ম শ্রেণির ইংরেজি ১ম পত্রের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় ভুল করে দুই/তিনটি কক্ষে ইংরেজি ২য় পত্রের প্রশ্নটি শিক্ষার্থীদের দেয়া হয়। তাৎক্ষণিক বিষয়টি নজরে আসলে ক্লাস থেকে প্রশ্ন নিয়ে আসা হয়। তবে কিছু দুষ্ট ছাত্র হয়ত প্রশ্নটি রেখে দেয় পরে ফেইজ বুকে ছেড়ে দেয়। এ প্রশ্নটি আমি বাতিল করেছি। তবে প্রশ্নে বিদ্যালয়টির নাম ভুল কেন আসল এমন বিষয়টি জানতে চাইলে তিনি বলেন, কেটে সংশোধন করেছি এবং যারা প্রশ্ন তৈরি করেছে তাদের বলেছি এমন ভুল করলেন কেন ?

মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. শফিকুল বারী জানান, বালালী বাঘমারা উচ্চ বিদ্যালয়ের অর্ধ-বার্ষিক ইংরেজি ২য় পত্র প্রশ্নটি ফাঁস হয়েছে।

এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে এ প্রশ্নটি বাতিল করেছি এবং প্রধান শিক্ষককে বলেছি নতুন আরেকটি প্রশ্ন তৈরি করে পরীক্ষা নেয়ার জন্য। এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের সভাপতির মোবাইল নম্বরে একাধিকবার ফোন করলে মোবাইল বন্ধ থাকায় তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

জুন ০৮, ২০২৩ at ১৮:১8:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/দেপ্র/ইর