“ওয়ার্ল্ড ফিজিওথেরাপি” এর সর্বোচ্চ সম্মাননা পেলেন যবিপ্রবি শিক্ষক ডা.ফিরোজ

যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিজিওথেরাপি অ্যান্ড রিহ্যাবিলিটেশন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক এবং বাংলাদেশ ফিজিওথেরাপি এসোসিয়েশন (বিপিএ) এর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা.ফিরোজ কবীর( পিটি) বৈশ্বিক ফিজিওথেরাপি সংস্থা “ওয়ার্ল্ড ফিজিওথেরাপি” এর কংগ্রেস ২০২৩ এ শিক্ষাক্ষেত্রে অসামান্য অবদানের জন্য সম্মাননা পেয়েছেন। প্রতি ৩ বছর পর পর বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ফিজিওথেরাপি শিক্ষা, চিকিৎসা ও গবেষণাক্ষেত্রে অবদানের জন্য সম্মাননা প্রদান করা হয়। এ বছর চিকিৎসাসেবায় অবদানের জন্য সেন্টার ফর দ্যা রিহ্যাবলিটেশন অব দ্যা প্যারালাইজড (সিআরপি) এর প্রতিষ্ঠাতা ব্রিটিশ বাংলাদেশি ফিজিওথেরাপিস্ট ডা. ভেলরি টেইলরকে সম্মানিত করেছে সংগঠনটি। বাংলাদেশ প্রথমবারের মত এ রকম বৈশ্বিক পুরষ্কার পেলো ও এক সাথে একবারে দুইটি সম্মাননা প্রাপ্ত হলো।

ডা.ফিরোজ কবীরের নিকট তার অনুভূতি জানতে চাইলে তিনি বলেন,’এবারের কংগ্রেসে ১২৯ টি দেশের মনোনীত প্রার্থীদের সাথে কম্পিট করে শিক্ষা ক্যাটাগরিতে পদকে ভূষিত হয়েছি এবং সিআরপির প্রতিষ্ঠাতা ভ্যালোরি এন টেইলর হিউম্যানিটি ক্যাটাগরিতে পদক লাভ করেছেন।বাংলাদেশের ফিজিওথেরাপির চিকিৎসক, শিক্ষার্থী এবং সর্বসাধারণের জন্য বাংলাদেশ ফিজিওথেরাপি এসোসিয়েশন (বিপিএ) কাজ করে যাচ্ছে।বাংলাদেশে প্রথম পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে যবিপ্রবি উপাচার্য অধ্যাপক ড.আনোয়ার হোসেন স্যারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় এবং ইউনিভার্সিটি গ্রান্ড কমিশন (ইউজিসির) র সহযোগিতায় ২০১৮ সালে ফিজিওথেরাপি অ্যান্ড রিহ্যাবিলিটেশন বিভাগের শিক্ষাকার্যক্রম চালু হয় অন ক্যাম্পাসে।

আরো পড়ুন :
> বিএডিসি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলনে অভিযোগ, মোটা অংকের ঘুষ নিয়ে গভীর নলকুপের লাইসেন্স প্রদান
> মোকামতলায় কবরস্থান থেকে ৮টি কঙ্গাল চুরি!

সর্বোপরি বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সার্বিক সহযোগিতায় এ বিভাগটি চালু হয়। বাংলাদেশেরসকল বিশ্ববিদ্যালয়ে একদিন ফিজিওথেরাপি বিষয়ে শিক্ষাকার্যক্রম শুরু হবে বলে এবং ফিজিওথেরাপি চিকিৎসা পেশা এগিয়ে যাবে বলে আমি আশা রাখি।মানুষের জন্য কাজ করতে চাই,পেশার জন্য কাজ করতে চাই।প্রাউড টু বি এ বাংলাদেশি,প্রাউড টু বি এ ফিজিওথেরাপিষ্ট।’

সম্প্রতি দুবাইয়ে ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে অনুষ্ঠিত হয়েছে “ওয়ার্ল্ড ফিজিওথেরাপি কংগ্রেস -২০২৩ “।বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ২৫০০ ফিজিওথেরাপিস্টদের অংশগ্রহণে ৩ বছর পর পর অনুষ্ঠিত ফিজিওথেরাপিস্টদের বৈশ্বিক মিলনমেলা এটি।জানা গেছে,এবার বাংলাদেশ থেকে ১৫ জন ফিজিওথেরাপি চিকিৎসক অংশ নেন এ কংগ্রেসে।এবছর শিক্ষক,গবেষক ও ক্লিনিক্যাল স্পেশালিস্টসহ বিশ্বের পাঁচ হাজার ফিজিওথেরাপিস্ট অংশ নেন দুবাইয়ের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারে ২ রা জুন উদ্বোধন হওয়া কংগ্রেসে।৪ জুন পর্যন্ত চলে এ কংগ্রেস। বাংলাদেশ থেকে ডা. কে এম এমরান হোসেন, লং কোভিডে বিশেষজ্ঞ প্যানেলিস্ট, এবং ডা. সনজিত কুমার চক্রবর্তী ও ডা. শাহাদৎ হোসেন বৈজ্ঞানিক প্রবন্ধ উপস্থাক হিসেবে অংশ নেন। ডা. মো. জাহিদ হোসেন বাংলাদেশে ওয়ার্ল্ড ফিজিওথেরাপি এর ” প্রাইমারি কন্টাক্ট” হিসেবে অংশ নেন ও শিক্ষা, গবেষনা ও সেবার বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের কার্যক্রম বিশ্বসভায় উপস্থাপন করেন।

বাংলাদেশ থেকে বাংলাদেশ ফিজিওথেরাপি এসোসিয়েশন (বিপিএ) এর ১৫ সদস্যের প্রতিনিধি দল গত সোমবার দুবাইয়ের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেন।উল্লেখ্য,ওয়ার্ল্ড ফিজিওথেরাপি ও বাংলাদেশ রিহ্যাবিলিটেশন কাউন্সিলের সদস্য বিপিএ।

জুন ০৪, ২০২৩ at ২০:০৪:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/দেপ্র/ইর