বঙ্গমাতা স্মরণে অভয়নগরে শতাধিক মায়েদের চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ বিতরণ করলেন ডা. নিকুঞ্জ

যশোর মেডিকেল কলেজের গাইনি বিভাগের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান ডা. নিকুঞ্জ বিহারী গোলদার চিকিৎসা সেবায় এক অনন্য দৃষ্টান্ত। গাইনী ও প্রসূতি নারীদের নানা জটিল কঠিন রোগে চিকিৎসা সেবা দিয়ে চিকিৎসা সাফল্যে নানাভাবে হয়েছেন পত্র পত্রিকার শিরোনাম।

অবসরে গিয়েও ২০১৬ সাল থেকে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব স্মরণে তিনি বাঘারপাড়া ও অভয়নগর অঞ্চলের গ্রামের অসহায় ও দরিদ্র পরিবারের নারীদের ফ্রি স্ত্রী, প্রসূতিসহ গাইনি চিকিৎসা ও পরামর্শ দিচ্ছেন। তার এ মহতী উদ্যেগে স্থানীয়রা নানা ভাষায় চিকিৎসক অধ্যাপক ডা. নিকুঞ্জ বিহারী গোলদারের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।

সে ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার (০৬ সেপ্টম্বর) যশোরের অভয়নগর উপজেলার চলিশিয়া ইউনিয়নের আন্ধা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দিন ব্যাপী ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প ও ঔষধ বিতরণ কার্যক্রম প্রদান করেন। উক্ত চিকিৎসা সেবা কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন স্থানীয় চলিশিয়া ইউনিয়নের ১, ২ ও ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মহিলা ইউপি সদস্য আমেনা বেগম।

আরো পড়ুন :
দৌলতপুরে বন্যায় ২০ গ্রামের মানুষ পানিবন্দী, ৮ স্কুলে শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ

এসময় উপস্থিত ছিলেন বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রদ্দুত কুমার রায়সহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।
এ দিন গ্রামের স্বল্প আয়ের শতাধিক মায়েদের গাইনী ও প্রসূতিসহ নানা জটিল কঠিন রোগে আক্রান্তদের মাঝে চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ বিতরণ করা হয়।

অধ্যাপক ডা. নিকুঞ্জ বিহারী গোলদারের ভাষ্যমতে, গ্রামের স্বল্প আয়ের মানুষ গাইনী ও প্রসূতি মায়েরা নানা জটিল কঠিন রোগে ভুগলেও অসচেতনতাসহ অর্থের অভাবে শহরে গিয়ে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের সেবা নিতে পারেন না। তাদের চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করার জন্য বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব স্মরণে প্রায় প্রতি শুক্রবার ও মঙ্গলবার ফ্র্রি মেডিকেল ক্যাম্পের আয়োজন করে তাদের সুচিকিৎসা প্রদানের চেষ্টা করছি। পর্যায়ক্রমে ফ্রি চিকিৎসা সেবার সময় ও দিন আরো বাড়ানে হবে।

অধ্যাপক ডা. নিকুঞ্জ বিহারী গোলদার এসময় আরও বলেন, পত্র পত্রিকায় সংবাদ হওয়ার কোন আগ্রহ নেই। পারিবারিকভাবে বঙ্গবন্ধুর আদর্শে জীবন যাপন করছি। সৃষ্টিকর্তা কর্মময় জীবনে মানুষের আর্শীবাদ সৎ ভাবে জীবন যাপনের সমার্থ দিয়েছেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান আমাদের স্বাধীনতা দিয়েছেন, একটি দেশ বাংলাদেশ দিয়েছেন।

তাঁর মহীয়সী সহধর্মীনিকে আমি প্রণাম ও সালাম জানায়। সেই মাতা বঙ্গমাতার অনুপ্রেণায় ২০১৬ সাল থেকে শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব স্মরণে সুযোগ পেলেই চিকিৎসা সেবা প্রদান করছি। এতে গ্রামের অসহায় ও দরিদ্র পরিবারের নারীদের ফ্রি স্ত্রী, প্রসূতিসহ গাইনি চিকিৎসা ও পরামর্শ সুনিশ্চিত করার চেষ্টা মাত্র। যতদিন জীবত থাকবেন তিনি চেষ্টা করবেন ফ্রি চিকিৎসা অবহ্যত রাখতে বলে জানান অধ্যাপক ডা. ডা. নিকুঞ্জ বিহারী গোলদার।

সেপ্টেম্বর ০৬,২০২২ at ১৮:০৬:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ /আক /দেপ /শই