অধরার অনুরোধ সত্যিকারের শিল্পীদেরকে নেতা নির্বাচনের জন্য

শুক্রবার (২৮ জানুয়ারি) অনুষ্ঠিত হবে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির দ্বিবার্ষিক নির্বাচন। এই নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা রয়েছে দুটি প্যানেল। একটিতে চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন-নিপুণ আক্তার পরিষদ এবং অন্যটিতে মিশা সওদাগর-জায়েদ খান পরিষদ। আসন্ন এই নির্বাচন নিয়ে চলচ্চিত্র শিল্পীরা তাদের নিজস্ব মতামত দিচ্ছেন। চিত্রনায়িকা অধরা খান শিল্পী সমিতির এই নির্বাচন নিয়ে একান্ত নিজের অভিব্যক্তির কথা জানিয়েছেন।

শিল্পী সমিতির নির্বাচন নিয়ে অধরা খান ভোটারদের অনুরোধ করে বলেন, সত্যিকারের শিল্পীদেরকে আপনাদের নেতা নির্বাচন করুন, যারা ব্যক্তিগত স্বার্থে সুবিধা নিতে নয়, বরং চলচ্চিত্রের সামষ্টিক, সামগ্রিক এবং শিল্পীদের উন্নয়নে কাজ করবেন।

সাময়িকভাবে কিছুমাত্র লাভ এর জন্য ভবিষ্যৎ শিল্পী পরিচয় নষ্ট করবেন না – ছোট্ট অনুরোধ সমিতির বিচক্ষণ ভোটারদের কাছে। এখনও চাইলে সবাই মিলে এই শিল্পকে অনন্য পর্যায়ে নিয়ে যাওয়া যাবে বলেই বিশ্বাস করি। কিন্তু সাময়িকভাবে নামমাত্র লাভের জন্য আপনার ভুল সিদ্ধান্তের ভোটে ভুল প্রার্থী নির্বাচিত হলে সেটা অনেক খানি সম্ভব হবে না!

আরো পড়ুন :
ওড়ার অনুমোদন পেলো উড়ন্ত গাড়ি
ঘোড়া দিয়ে হাল চাষ করে দিব্যি সংসার চালাচ্ছেন ঠাকুরগাঁওয়ের ভূষণ রায়

তিনি আরও বলেন, আগামীকাল ২৮ জানুয়ারি বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির দ্বিবার্ষিক নির্বাচন। এবার দুটি প্যানেল নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। সমিতির সদস্যরা বরাবরের মতো উৎসবমুখর পরিবেশে তাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে শিল্পীদের এই প্রাণের সংগঠনের আগামীর নেতৃত্ব নির্বাচন করবেন। আমারও নির্বাচনে ভোট দেওয়ার কথা ছিল। সমিতির চলমান কমিটি কর্তৃক জেনেছিলাম এবার আমিও ভোটার!

তবে ভোটার লিস্ট যখন প্রকাশিত হলো সেখানে আমার নাম নেই এবং ছিল না! কিন্তু উল্লেখযোগ্য চরিত্রে আমার অভিনীত তিন ছবি মুক্তি পাওয়া সত্ত্বেও আমার ভোটাধিকার বাতিল করা হয়েছে। কেন করা হয়েছে, কোন কারণে করা হয়েছে কিংবা কারা করেছে – এই মুহূর্তে সেই বিতর্কে যাচ্ছি না।

এদিকে দেশের বাইরে থাকার কারণে এবারের নির্বাচনী উৎসবে অংশ নিতে পারছেন চিত্রনায়িকা অধরা খান। তবে অবশ্যই চাই সুষ্ঠু, শান্তিপূর্ণ ও বন্ধুত্বপ্রতিম পরিবেশে শিল্পী সমিতির আগামী দিনের যোগ্য নেতৃত্ব নির্বাচিত হোক সেই কামনা করেছেন সাত সমুদ্রে পার করে অন্যদেশে অবস্থান করা ‘মাতাল’র নায়িকা।

জানুয়ারি ২৬.২০২১ at ১২:৫০:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/সনি/রারি