পূর্ণিমার ২৫ বছর!

বিজ্ঞাপন

পূর্ণিমার চাঁদের মতো উজ্জ্বল একজন তিনি। অভিনয় ও সৌন্দর্য দিয়ে মাতিয়ে রেখেছেন ২৫ বছর। শুরুটা ক্লাস নাইনে পড়াকালীন সময়ে। ১৯৯৭ সালের এ দিনে (২ জানুয়ারি) যাত্রা শুরু করলেন জাকির হোসেন রাজুর ‘এ জীবন তোমার আমার’ ছবির মাধ্যমে।

ধ্রুবতারার মতো আগমন। পূর্ণিমা যে আলো ছড়াবেন তা বুঝে গিয়েছিলেন সবাই। একে একে অভিনয় করলেন ‘মেঘলা আকাশ’, ‘শিকারী’, ‘স্বামী-স্ত্রীর যুদ্ধ’, ‘মেঘের পর মেঘ’, ‘হৃদয়ের কথা’ সিনেমায়। স্থায়ী আসন করে নিলেন বাংলা সিনেমা দর্শকদের মনে।

এ পর্যন্ত শতাধিক ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। পাশাপাশি ছোটপর্দায়ও কাজ করেছেন। ২৫ বছরে অনেক ধরনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন। রিয়াজের বিপরীতে দারুণ অভিনয় করেছিলেন এ সুন্দরী। নায়ক মান্নার সঙ্গে জুটি গড়েছিলেন পূর্ণিমা।

আরো পড়ুন:
নতুন মনিটর কেনার আগে যেসব বিষয় জানা জরুরি
১৯৭ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত শেখ হাসিনা ধরলা সেতুতে বন্ধ লাইটিং, দুর্ভোগ চরমে

ফেরদৌসের সঙ্গে স্ক্রিন শেয়ার করেও দর্শক হৃদয়ে জায়গা করে নিয়েছেন মিষ্টি হাসির এ অভিনেত্রী। ঐতিহাসিক গল্পের কিছু ছবিতেও দেখা গেছে তাকে। মুক্তিযুদ্ধের গল্প নিয়ে তৈরি ‘মেঘের পরে মেঘ’ ছবিতে কাজ করেছেন। বঙ্গবন্ধুর বায়োপিক ‘চিরঞ্জীব মুজিব’ এ অভিনয় করেছেন পূর্ণিমা।

গুণী এই অভিনেত্রী অভিনয় ছাড়ায় উপস্থাপনায় বিশেষ নজর কেড়েছেন। ‘ওরা আমাকে ভালো হতে দিল না’ সিনেমায় অভিনয় করে সেরা অভিনেত্রী ক্যাটারগরিতে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন। ২০১০ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত জন্য এ সম্মাননা পেয়েছেন তিনি। এরপর ‘মনের মাঝে তুমি’, ‘হৃদয়ের কথা’, ‘ধোকা’ সিনেমার জন্য মেরিল প্রথম আলো পুরস্কার ঘরে তুলেছেন পূর্ণিমা। এ ছাড়া অসংখ্য সম্মাননা আছে তার ঝুলিতে।

জানুয়ারী ০২.২০২২ at ১৭:০৪:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/সনি/জআ