বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দশম শ্রেনীর ছাত্রীকে গণধর্ষণ, আটক- ১

বিজ্ঞাপন

সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলায় বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে পালিয়ে নিয়ে দশম শ্রেণির ছাত্রীকে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এঘটনায় অভিযুক্ত ১জনকে আটক করেছে দোয়ারাবাজার থানা পুলিশ।

বুধবার রাতে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন উপজেলা বাংলাবাজার ইউনিয়নের মির্ধাপাড়া গ্রামে ধর্ষণের স্বীকার ঐ ছাত্রীর বাবা। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গ্রামের মাসুক মিয়ার ছেলের সাথে স্থানীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেনীর ছাত্রীর প্রেমের সম্পর্ক ছিলো।

মঙ্গবার রাতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে হাবিব মিয়া ও তার বোনজামাই মনির মিয়া এবং মামাতোভাই রফিক আলীর যোগসাজশে মেয়েটিকে বাড়ি থেকে পালিয়ে নিয়ে পার্শ্ববর্তী নরসিংপুর ইউনিয়নে নির্জন এলাকায় নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

আরো পড়ুন :
যশোরে ভাইপোর স্ত্রীকে বিয়ে নিয়ে বিরোধে হামলা, স্বর্ণালংকর ও টাকা লুটের ঘটনায় মামলা
জনতার উত্তাল ঢেউয়ে হাসিনার পতন অত্যাসন্ন- ঝিনাইদহে নিতাই রায় চৌধুরী

স্থানীয়দের সহযোগিতার মেয়েটিকে উদ্ধার করে সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠালে সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত মেয়েটি চিকিৎসাধীন রয়েছে। এ অভিযোগের প্রেক্ষিতে দোয়ারাবাজার থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মনিরুজ্জামান খান অভিযান করে মনির মিয়া নামে একজনকে গ্রেফতার করেছেন।

এবিষয়ে জানতে চাইলে দোয়ারাবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেব দুলাল ধর জানান, বখাটে যুবক হাবিব মিয়া ও তার মামাতো ভাই রফিক মিয়াকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ডিসেম্বর ৩০.২০২১ at ১৫:১৫:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/জাআভুঁ/রারি