করোনা কিটবক্র অভিযোগ সত্য নয় : রামেক পরিচালক

বিজ্ঞাপন

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালের আরটিপিসিআর (রিভার্স ট্রান্সক্রিপশন পলিমারেজ চেইন রিয়েকশন) ল্যাবে ২ হাজার কিটবক্র নয়ছয়ের অভিযোগ সত্য নয় বলে জানিয়েছেন রামেক কর্তৃপক্ষ।

সোমবার সকালে উত্তরা প্রতিবেদককে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রামেকের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শামীম ইয়াজদানী। তিনি বলেন, ‘এ ঘটনায় আমার নিকট একটি লিখিত অভিযোগ এসেছিল। আমি ওই লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে ১০ নভেম্বর দুই সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি করেছি। তদন্তে অভিযোগের কোনো সত্যতা মেলেনি।’

তবে তদন্ত চলাকালীন কমিটির এক সদস্যের সাথে কথা হয় উত্তরা প্রতিদিনের প্রতিবেদকের। তিনি বলেন, কিটবক্র খোয়া যাওয়ার বিষয়টি স্পর্শকাতর। তাছাড়া এটি বর্তমানে তদন্তাধীন। ল্যাবে কাজ করা প্রত্যেককে ডেকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। বিষয়গুলো পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে খতিয়ে দেখাও হচ্ছে। প্রতিবেদন দাখিলের পরই এ ব্যাপারে বিস্তারিত বলা যাবে। এর আগে নয়।’

আরো পড়ুন :
চেয়ারম্যান নয়-সেবক হিসেবে আমৃত্যু কাওয়াকোলাবাসীর পাশে থাকতে চাই
সিরাজগঞ্জে চাষ হচ্ছে কুচিয়া মাছ

এদিকে তদন্ত রিপোর্টের বিষয়ে জানতে চাইলে রামেক পরিচালক বলেন, ‘করোনা পরিস্থিতির শুরু থেকেই রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ ও রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থাপিত দু’টি আরটিপিসিআর ল্যাবকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন অসঙ্গতি ও অনিয়মের অভিযোগ উঠে আসছিল। এবার সেই মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ২ হাজার কিটবক্রের কোন হদিস মিলছে না! এমন অভিযোগ আসার পরপরই তদন্ত কমিটি করে দ্রুত সময়ের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছিল। তদন্ত ইতিমধ্যে শেষও হয়েছে। তদন্তে অভিযোগের সত্যতা মেলেনি।’

তিনি আরও জানান, ‘কাজের ব্যস্ততা ও দীর্ঘদিন ধরে রেজিস্ট্রার খাতাপত্রে কিটের হিসেবে ঠিকভাবে না তোলার কারণে দুই হাজার কিটের হিসেবে গড়মিল হয়। এঘটনার প্রেক্ষিতে অভিযোগটি আসে। কিন্তু পরে পুণরায় খাতাপত্র ও কিট সংশিল্ট জিনিসপত্র ঘেটে দেখার পর তার সঠিক হিসেবে মেলে।’

নভেম্বর ২২.২০২১ at ১৮:৫৫:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/মারারা/রারি