পেঁয়াজ-মরিচের মূল্যবৃদ্ধি

বিজ্ঞাপন

রংপুরসহ উত্তরাঞ্চলের বাজারে বাজারে পেঁয়াজ ও কাঁচা মরিচের দাম বাড়তি। সরবরাহ কমায় দামের এই ঊর্ধ্বগতি বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। তবে দুর্গাপূজার কারণে বর্ডারেই পেঁয়াজের দাম বাড়ার কথা জানিয়ে সরবরাহ ঠিক রাখার চেষ্টা করছেন বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি।

দুর্গাপূজায় ভারতীয় পেঁয়াজের আমদানি এক সপ্তাহ বন্ধ থাকবে, এই অজুহাতে পেঁয়াজের দাম বাড়িয়ে দিয়েছেন রংপুরের ব্যবসায়ীরা। রংপুর সিটি বাজারের পাইকারি মোকামে দেশি পেঁয়াজ ৫৮ টাকা ও ভারতীয় পেঁয়াজ ৪৮ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। সেই পেঁয়াজ খুচড়া বাজারে রাখা হচ্ছে যথাক্রমে ৬৫ ও ৫৫ টাকা।

দেশের অন্যতম বৃহৎ দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর দিয়ে প্রতিদিন ৩০০ থেকে ৬০০ টন পেঁয়াজ প্রতিদিন বাংলাদেশে প্রবেশ করছে। আগামী সোমবার থেকে দুর্গাপূজা উপলক্ষে ৬ দিনের জন্য স্থলবন্দর বন্ধ হবে। কিন্তু এই অজুহাতে আগে থেকে পেঁয়াজের দাম বাড়বে কেন- এই প্রশ্নের উত্তর দিচ্ছেন না ব্যবসায়ীরা।

শুক্রবার (৮ অক্টোবর) রংপুরে এক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে এসে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বানিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন, দুর্গাপূজার কারণে বর্ডারেই পেঁয়াজের দাম বেড়েছে। সরবরাহ ঠিক রাখতে বৈঠক করেছেন বলে জানান তিনি।

আরও পড়ুন:
তাহিরপুরে নিয়োগ অনিয়মের তদন্তে মাঠে নেমেছে দুদক
রাণীশংকৈলে নাজিমউদ্দিন স্মৃতি নাইট ক্রিকেট টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত

আরেক দিকে আবার স্থিতিশীলতা হারাচ্ছে কাঁচা মরিচের বাজার। কেজিতে ২০০ টাকা থেকে ১০০ টাকায় নামার পর দাম আবার বাড়তে শুরু করেছে। এক দিনের ব্যবধানে প্রতি কেজিতে ২০ থেকে ৪০ টাকা বেশি নেওয়া হচ্ছে কাঁচা মরিচের দাম।

অক্টোবর ০৯.২০২১ at ১৬:১৮:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/সনি/জআ