মহানগরীর সাহেব বাজার মাছপট্টিতে বোয়ালিয় থানার ওসির হানা, গ্রেফতার ৫ জুয়াড়ী

বিজ্ঞাপন

ডিবি‘র পর এবার রাজশাহী মহানগরীর সাহেব বাজার মাছপট্টির ছাদে অভিযান চালিয়ে ৫জন জুয়াড়ীকে গ্রেফতার করেছে বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ।

গতকাল রোববার দুপুর আড়াইটায় সাহেব বাজার মাছপট্টির ছাদে অভিযান চালায় বোয়ালিয়া থানার ওসি নিবারনচন্দ্র বর্মন ও সঙ্গীয় ফোর্স। এ সময় জুয়া খেলা অবস্থায় ৫জন জুয়াড়ীকে হাতেনাতে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়। তবে পালিয়ে যায় জুয়ার বোর্ড পরিচালনাকারী রাজু ও অন্যান্য জুয়াড়ীরা।

গ্রেফতার জুয়াড়ীরা হলো: মহানগরীর বোয়ালিয়া থানাধিন হোসনিগঞ্জ (রুটি ওয়ালাপাড়া) এলাকার মৃত মহির শেখের ছেলে মো. স্বাধীন অরফে হাবিবুর রহমান (৪৮), শাহমখদুম থানাধিন বড় বনগ্রাম বাগান পাড়া এলাকার মৃত সেলিমের ছেলে মো. পিন্টু (৪১), চন্দ্রিমা থানাধিন শিরোইল কলোনী (১নং গলি) বড় মসজিদ এলাকার মৃত গিয়াস উদ্দিনের ছেলে মো. সাব্বির হোসেন (৩২), একই থানার মৃত আলা চৌধুরীর ছেলে মো. মিন্টু ও শিরোইল কলোনী পশ্চিম পাড়া (কানার মোড়) এলাকার মো. মতিউর রহমানের ছেলে মো. রায়হান তুষার (৩০)। এছাড়াও একই থানার পলাতক আসামী (জুয়ার বোর্ড পরিচালনাকারী) আসাম কলোনী রবের মোড় এলাকার মো. আলাউদ্দিনের ছেলে মো. রাজু আহম্মেদ অরফে রাজু (৪৩)।

আরো পড়ুন :
চৌগাছায় ফুল দিয়ে শিক্ষার্থী বরণ
শিবগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধা স্কুল এন্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে আনন্দ উল্লাস

বোয়ালিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নিবারন চন্দ্র বর্মন জানায়, মহানগরীর সাহেব বাজার মাছ পট্টির ছাদে রাজু নামে এক ব্যক্তি নিয়মিত জুয়ার আসর পরিচালনা করছে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে গতকাল রোববার দুপুর আড়াইটায় মাছপট্টির ছাদে অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলা অবস্থায় ৫জন জুয়াড়ীকে গ্রেফতার করা হয়। তবে মূল হোতা রাজু সহ অন্যান্য জুয়াড়ীরা পালিয়ে যায়।

এ ব্যপারে রাজুকে পলাতক আসামী করে গ্রেফতার জুয়াড়ীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে বলেও জানান ওসি। উল্লেখ্য, গত (৭ সেপ্টম্বর) একই স্থানে রাত সাড়ে ১১টায় অভিযান চালিয়ে জুয়ার বোর্ড পরিচালনাকারী রাজুসহ ৫জন জুয়াড়ীকে গ্রেফতার করে মহানগর ডিবি পুলিশের একটি দল। পরে জামিনে বেরিয়ে এসে আবারও জুয়ার আসর বসায় রাজু। তবে এবার বোয়ালিয়া মডেল থানার ওসির কঠোর হস্তক্ষেপে তারা আবারও গ্রেফতার হয়।

সেপ্টেম্বর  ১২.২০২১ at ২২:২৮:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/মারারা/রারি