তুরস্কের সেনা বহরে ভয়াবহ হামলা : নিহত ২

বিজ্ঞাপন

সিরিয়ার ইদলিবে এক হামলায় তুরস্কের দুই সেনা নিহত, তিন সেনাও আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। শনিবার(১১ আগস্ট) তুরস্কের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে এই তথ্য নিশ্চিত করেছে আল জাজিরা।

তুরস্কের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানায়,ইদলিবের ‘ডি-এস্কেলেশন’ জোনে অভিযান পরিচালনা শেষে ফেরার পথে তুরস্কের সেনা গাড়ি লক্ষ্য হামলা চালানো হলে এই ঘটনা ঘটে।

তুরস্কের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় আরো জানান, যে দুই জন সেনা কর্মকর্তা নিহত হয়েছেন তারা ইনফ্রান্ট্রি ডিভিশনের নন-কমিশনড সেনা কর্মকর্তা।

এদিকে সিরিয়ান অবজারভেটরি ফর হিউম্যান রাইটস জানায়, ইদলিবের বাননিশ এলাকায় রাস্তায় পেতে রাখা ভয়াবহ বোমা বিস্ফোরণে এই হতাহতের ঘটনা ঘটে।

আরও পড়ুনঃ
ঝিনাইদহে মেহেরপুর প্রতিদিন পত্রিকার প্রতিনিধি সভা অনুষ্ঠিত
থানচিতে (বংড) বড় পাথরে এক পর্যটকের নিখোঁজ

তারা আরো জানায়, আহত সেনা সদস্যদের হেলিকপ্টারে তুরস্কের নিয়ে যাওয়া হয়েছে। ধারনা করা হচ্ছে সিরিয়ার মিলিশিয়া আবু বকর আল সিদ্দিক কোম্পানি এই হামলার জন্যে দায়ি। এর আগেও তারা তুরস্কের সেনাদের ওপর হামলায় জড়িত ছিল।

এদিকে তুরস্কের সংবাদ মাধ্যম ডেইলি সাবাহ’র জানায়, ২০১৮ সালের পর থেকে সিরিয়ায় বিরোধীদের দখলে থাকা সর্বশেষ এলাকা ইদলিবে নাটকীয়ভাবে হামলা বেড়ে গেছে।

এর ফলে তুরস্ক অভিমুখে শরণার্থীদের ঢলও বেড়েছে। সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে সিরীয় সরকারি বাহিনীর অগ্রগতি থামাতে ইদলিবে সেনা এবং সামরিক সরঞ্জাম বাড়িয়েছে তুরস্ক।

এর আগে সিরিয়ার বিদ্রোহী নিয়ন্ত্রিত এলাকায় ফের অভিযান শুরু করে আসাদ বাহিনী। বুধবার ইদলিবের বেশ কয়েকটি ভবন লক্ষ্য করে চালানো হয় বিমান হামলা। এতে প্রাণ হারিয়েছেন বেশ কয়েকজন বেসামরিক নাগরিক।

বুধবার দারা শহরের নিয়ন্ত্রণ নেয় সরকারি বাহিনী।

সেপ্টেম্বর ১১.২০২১ at ২০:৩৭:০০ (GMT+06)
দেশদর্পণ/আক/সনি/জআ