তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা

ছবি: প্রতীকী

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে তৃতীয় শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে জোর করে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার খলিসাকুণ্ডি ইউনিয়নের মৌবাড়ীয়া গ্রামে বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) দুপুরের দিকে এ ঘটনা ঘটে। শুক্রবার (১৬ অক্টোবর) ওই ছাত্রীর পরিবারের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে দৌলতপুর থানায় একটি অভিযোগ করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, স্থানীয় একটি স্কুলের তৃতীয় শ্রেণিতে পড়ুয়া ছাত্রী (৯) বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে বাড়ির পাশের মাঠে ছাগল চরাতে যায়। এ সময় একই গ্রামের নজু কাজি (৫৫) নামে এক ব্যক্তি শিশুটিকে মুখ চেপে ধরে জোরপূর্বক পার্শ্ববর্তী একটি বাগানে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। শিশুটি চিৎকার করলে ঘটনাস্থল থেকে কিছু দূরে থাকা তার নানাসহ কয়েকজন সেখানে এগিয়ে যান। এ সময় ধর্ষণ চেষ্টাকারী নজু কাজি দৌড়ে পালিয়ে যায়।

পরে শিশুটির নানা সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে বাড়িতে নিয়ে আসেন। এ ঘটনায় শুক্রবার বিকেলে শিশু মেয়েটির পিতা ধর্ষণ চেষ্টাকারী নজু কাজির নামে দৌলতপুর থানায় একটি অভিযোগ করেন। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত নজু কাজি পলাতক রয়েছে। সে একই গ্রামের মনছের কাজির ছেলে।

দৌলতপুর থানার ওসি (তদন্ত) শাহাদাৎ হোসেন রাতে জানান, শিশু ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। অভিযুক্ত ব্যক্তিকে গ্রেপ্তারের জন্য পুলিশের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।