বিয়ের দাবীতে অবস্থানরত কিশোরির মাকে মারপিট

হরিণাকুন্ডু উপজেলা কালাপাড়িয়া আবাসন বস্তিতে বিয়ের দাবীতে অবস্থানরত সিমলা খাতুন (১৪) নামে এক কিশোরীর মাকে মারধর করেছে পোড়াহাটী ইউনিয়নের মেম্বর হাসিম আলীসহ তার দলবাল। এ ঘটনায় হরিণাকুন্ডু থানায় কিশোরির ভাই জুয়েল অভিযোগ দিয়েছে।

পোড়াহাটী পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ ইকবাল হোসেন জানান, প্রথমে ওই কিশোরির সাথে আব্দুর রহিম নামে এক যুবকের প্রেম ছিল। এরপর প্রেম হয় প্রতিবেশি যুবক ছামছুলের সাথে। ছামছুল বিয়ে করে সংসার করতে থাকে। গত বুধবার পুর্ব প্রেমের সুত্র ধরে বিয়ের দাবীতে প্রতিবেশি যুবক পিয়ার আলীর ছেলে ছামছুলের বাড়িতে অবস্থান নেয় সিমলা।
আরও পড়ুন: ইউএনও’কে নিয়ে অপপ্রচারের প্রতিবাদে মানববন্ধন

খবর পেয়ে স্থানীয় হাসেম মেম্বর, কালু, মবিরুল, বশির ও ইসলাম মেয়েটিকে তার মার কাছে পৌছে দিতে যায়। এ সময় তার মা মেয়েকে নিতে অস্বীকার করে। এ সময় কালু, মবিরুল, বশির ও ইসলাম মেয়র মাকে বেদম মারপিট করে। কিশোরির ভাই জুয়েল অভিযোগ করেছে তার বোনকে দুই দিন আটকে রেখে ধর্ষন করেছে। আমি বিচার চাই।

দেশদর্পণ/কেএল/এসজে